জামালপুরে সংখ্যালঘু নিঃসন্তান বৃদ্ধার কোটি টাকার সম্পক্তি আত্মসাৎ

73
জামালপুরে সংখ্যালঘু নিঃসন্তান বৃদ্ধার কোটি টাকার সম্পক্তি আত্মসাৎ

রোকনুজ্জামান সবুজ, জামালপুর 

জামালপুরের সরিষাবাড়ির বারইপটল গ্রামে সংখ্যালঘু প্রায় নব্বই বছরের নি:সন্তান অসহায় বৃদ্ধা অমিয় প্রভা দে সরকারের নগদ টাকাসহ কয়েক কোটি টাকার সম্পতি বেদখল করে নিয়েছে মৃণাল কান্ত দেব তপন নামের এক প্রভাবশালী। প্রতারনার মাধ্যমে কোটি কোটি টাকার সম্পদ আত্নসাত করায় ওই বৃদ্ধা এখন অনাহারে অর্ধাহারে মানবেতর জবীন যাপন করছেন। বর্তমানে তার বসতভিটা থেকে উচ্ছেদ করতে প্রাণ নাসের হমকী দিচ্ছেন প্রভাবশালীরা। তাই তিনি জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন বৃদ্ধা।
গত রবিবার (৮ নভেম্বর) সকালে স্থানীয় পত্রিকা অফিসে এক সংবাদ সম্মেলনে বৃদ্ধার উপস্থিতিতে এসব অভিযোগ করেন বৃদ্ধার ভাইপো জীবনান্দ দাশ জীবন। ওই সংবাদ সম্মেলনে সহায় নিঃসন্তান বৃদ্ধার সম্পদ ফিরে পেতে সরকারের কাছে হস্তক্ষেপ কামনা করেন বৃদ্ধা প্রভা দে সরকার(৮২)।
লিখিত বক্তব্যে উল্লেখ করেন তার স্বামী নগেন্দ্র দে সরকার ১৯১৪ সালে ব্রিটিশ সেনা বাহিনীর গ্রুপ ক্যাপ্টেন পদে কর্মরত ছিলেন। তিনি জীবদ্দশায় সরিষাবাড়ি উপজেলার বারইপাটল মৌজায় ৮ একর ৯৩ শতাংশ জমি রেজিস্ট্রি করে দেন। এসব জমি ভোগ দখল করে আসছিলেন ৮২ বৎসর বয়সের বৃদ্ধা অমিয় প্রভা দে সরকার। তার কোন সন্তান না থাকায় ভাইপো জীবন চন্দ্র দে তাকে দেখভাল করে আসছি। কিন্তু প্রতিবেশী মৃণাল কান্ত দে নামে প্রভাবশালী এক ব্যাক্তি তিনি প্রভা দে সরকারের বার্ধ্যক্ষ জনিত অসুস্থতার সময় হাই কোর্টের মামলা পরিচালনার জন্য (পাওয়ার অব এ্যাটর্নী)ক্ষমতা নেন। ওই পাওয়ার অব এ্যাটর্নী নেয়ার পরিবর্তে প্রতারণার মাধ্যমে সমস্ত জমি-জমা ক্রয়-বিক্রয়ের ব্যপক ক্ষমতা সম্পন্ন দলিল করে নেন। পরে তিনি সংখ্যালঘু বৃদ্ধার সাথে প্রতারণার করে তার স্ত্রী আলো রাণী নামে ১.১৮ একর জমি রেজিষ্টি মুলে লিখে দেন এবং আব্দুর রহমান মাস্টার কাছে ২১ শতাংশ জমি বিক্রি করেদেন। এছাড়া প্রভাবশালী তপন দেব ভারতে নিয়ে চিকিৎসার নাম করে অসহায় বৃদ্ধা প্রভা দে’র কাছ থেকে ১ কোটি ৫৬ লাখ নগদ টাকা হাতিয়ে নেয় । বর্তমানে অবশিষ্ট বাড়ি ভিটা জমিসহ বেদল করে উচ্ছেদ করারর পায়তারা করে আসছেন। অসহায় নিঃসন্তান বৃদ্ধা প্রভা দে’র সমস্ত সম্পত্তি আত্নসাৎ ও বেদখলের প্রতিবাদ করায় নানা ভাবে প্রাণ নাসের হুমকী দিয়ে আসছেন। ভুক্তভোগির অভিযোগ প্রভাবশালী তপন দেব ও তার বাহিনীর অব্যাহত হুমকীতে প্রভা দে’সহ তার ভাইপো জীবন চন্দ্রসহ লালন-পালনকারীদের জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন সংখ্যালঘু পরিবার।
এ ব্যাপারে অসহায় বৃদ্ধা প্রভা দে’র সম্পত্তি ফিরে পেতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীসহ স্থানীয় প্রশাসনের সুদষ্টি কামনা করছেন সংবাদ সম্মেলন করেছেন অসহায় নিঃসন্তান বৃদ্ধা প্রভা দে।
এবিষয়ে মোবাইল ফোনে মৃণাল কান্তি দে তপনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি অভিযোগ মিথ্যা ও বানোয়াট বলে অস্বীকার করেছেন।
এব্যাপারে সরিষাবাড়ি উপজেলার পিংনা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোতাহার হোসেন জয় বলেন এ বিষয়টি আমার জানা ছিলো না। তাই তিনি সামাজিক ভাবে আলোচনা করে বিষয়টি মীমাংসা করার চেষ্টা করা হবে বলে জানিয়েছেন।

print